Bengali movie review: C/O Sir directed by Kaushik Ganguly

1
176
kolkata-bengali-actor-saswata-chatterjee in c/o sir
Saswata Chatterjee

“শব্দ” জাতীয় স্তরে দুর্দান্ত সাফল্যের পর  Kaushik Ganguly -এর পরবর্তী ছবিকে ঘিরে দর্শকদের প্রত্যাশা ছিল অপরিসীম। বিশেষ করে সেই ছবির নায়ক যখন বাংলা চলচিত্রের এইসময়ের সবচেয়ে versatile অভিনেতা শাশ্বত চট্টোপাধ্যায়।

এক প্রতিভাবান অভিনেতা ও একজন অন্যরকম পরিচালকের জুটিকে ঘিরে সমালোচক মহলেরও উৎসাহ ছিল প্রচুর। প্রত্যাশার এই চাপ তো প্রতিভাবান মানুষদের নিত্যসঙ্গী তাই এই চাপ নিয়েও তাঁদের প্রতিনিয়ত সৃজনশীল কাজ করার প্রচেষ্টা চালিয়ে যেতে হয়।

kaushik-ganguly-directed-C/o-Sir

যাই হোক এবার আলোচনা শুরু করা যাক, Kaushik Ganguly পরিচালিত নতুন ছবি “C/O Sir” নিয়ে। ছবিটির ট্রেলার দেখে মনে হয়েছিল যে এই ছবি তুলে ধরবে এক অন্ধ হয়ে যাওয়া মানুষের জীবনের নানান ঘাত প্রতিঘাত, অসহায়তা এবং লড়াইকে।

ছবি দেখতে দেখতে বুঝতে পারলাম যে এটি একটি রহস্য কাহিনিও বটে, যার বাঁকে বাঁকে জড়িয়ে আছে মানুষের মুখ ও মুখোশ, যেখানে প্রায় সব চরিত্র স্বার্থের কালো কাঁটা তারে বন্দী। গল্পটির মধ্যে প্রচুর আকর্ষণীয় উপাদান মিলে মিশে আছে। গল্পের হাত ধরে চেনা চরিত্রগুলি যখন হঠাৎ অচেনা হয়ে ওঠে তখন গল্পের মোড় ঘুরে যায় এমন দিকে যেটা দর্শকদের নতুন করে ভাবতে বাধ্য করে। কোনটা বেশী অন্ধকার ? একজন অন্ধমানুষের কালো পৃথিবীটা ? নাকি চোখে দেখতে পাওয়া মানুষের মনের ভিতরের অন্ধকার দিকগুলো ? Kaushik Ganguly -কে বাহবা দিতেই হবে এমন একটি আকর্ষণীয় গল্প আমাদের সামনে উপস্থাপনা করার জন্য।

তবুও সিনেমা মানে তো শুধু গল্প ভাবা নয়, সেই গল্পটিকে সঠিকভাবে ফুটিয়ে তুলতে হবে চিত্রনাট্যের ভাষায়, লিখতে হবে উপযোগী সংলাপ যাতে সেই চিত্রনাট্য হয়ে ওঠে শানানো তলোয়ারের মতন ধারালো আর এখানেই “C/O SIR”-এর দুর্বলতার ইতি কথা। গল্পটি এতটাই জটিল, যে সেটিকে দর্শকদের সামনে আনতে গেলে যে জোরালো চিত্রনাট্যের প্রয়োজন ছিল তা এখানে আমি অন্তত খুঁজে পাইনি। অথেচ Kaushik Ganguly –এর যেকোনো ছবির মূল আকর্ষণ হয়ে থাকে চিত্রনাট্য, তা সে “Arekti Premer golpo” হোক কিম্বা “শব্দ” (ETV বাংলার জন্যে Kaushik Ganguly-এর টেলিছবি গুলির কথা তো ছেড়েই দিলাম, একেকটি টেলিফিল্ম এখনও YOUTUBE –এ রোজ প্রায় ১৫০ হিট পায়, তাতেই বোঝা যায় আজও ঐসব টেলিফিল্ম গুলির আকর্ষণ কেমন দর্শক মহলে) সব জেনেও, একথা বলতেই হবে যে “C/O Sir”-এর চিত্রনাট্য, সংলাপ আরও অনেক  জোরালো তথা ধারালো হতে পারতো।

যেহেতু এই প্রতিবেদন ছবির প্রথম দিনেই লিখছি এবং theme-টি রহস্যময় তাই গল্পটি বিস্তারিতভাবে এখানে লিখছি না। শুধু এইটুকু বলে রাখি যে গল্পটির কেন্দ্রীয় চরিত্রে আছেন এমন একজন শিক্ষক, যিনি ধীরে ধীরে হারিয়ে ফেলেছেন তার দৃষ্টিশক্তি, চারিদিকের পৃথিবীটা তার কাছে এক অন্ধকার জেলখানার মতন, চেনা মুখগুলি হয়ে যাচ্ছে অচেনা। বেরিয়ে পড়ছে সেই চেনা মুখোশগুলোর আড়ালে থাকা কালো মুখগুলো, আবার মুখোশের আড়াল থেকেও কি কোন সত্যিকারের মানুষ বেরিয়ে এল না ? চিত্রনাট্যটি আরেকটু জোরালো হওয়া উচিৎ ছিল, তাহলে হয়ত ছবিটা অন্যরকম হতে পারতো, হওয়ার প্রয়োজনও ছিল। কিছু কিছু জায়গা লজিক্যালি জাস্টিফাই করার প্রয়োজনীয়তা ছিল, যেমন রনবীর ও জয়ব্রতর বন্ধুত্বের উৎস, প্রবাহ এবং ধারা নিয়ে আরেকটু সময় খরচ করা উচিৎ ছিল চিত্রনাট্যকারের। কেনই বা জয়ব্রত রনবীরকে এত বিশ্বাস করলেন শুরু থেকে? বন্ধু ঠিক আছে কিন্তু সম্পর্কের Background একটু ব্যাপ্ত  করা কি যেত না স্ক্রিপ্টে  ?

দুরন্ত, দুর্ধর্ষ অভিনয় করেছেন জয়ব্রত রায়ের চরিত্রে শাশ্বত চট্টোপাধ্যায়, একজন দৃষ্টিহীন মানুষের রাগ, দুঃখ, ক্ষোভ, অসহায়তা, অবদমিত ভালোবাসা সব অনুভুতিগুলিকে নিপুণ শিল্পীর তুলির আঁচরের মতন সাবলীলভাবে ফুটিয়ে তুলেছেন।

মিসেস চ্যাটার্জির চরিত্রে সুদীপ্তা চক্রবর্তী বেশ ভালো। চরিত্রটির ব্যাথা বেদনা, জয়ব্রতর প্রতি অবদমিত, নিরুঃচার ভালবাসাকে নিখুঁতভাবে ছবির পর্দায় নিয়ে এসেছেন এই প্রতিভাময়ী অভিনেত্রী।

সুস্মিতা চরিত্রে রাইমা সেন একটি অন্যধরনের চরিত্রে নিজেকে মেলে ধরেছেন দারুনভাবে, তাকে কিছু দৃশ্যে বিনা মেক আপে দেখতে বেশ লেগেছে। আমার মতে সুস্মিতা/ রেশমি চরিত্রটি এখনও পর্যন্ত করা রাইমার সবথেকে জটিল ছরিত্র।

বাকি চরিত্রে সব্যসাচী চক্রবর্তী, অরুন মুখোপাধ্যায়, ইন্দ্রনীল সেনগুপ্ত এবং Kaushik Ganguly  স্বয়ং, সবাই ভালো ও মানানসই।

চিত্রগ্রাহক শীর্ষ রায় ভালো কাজ করেছেন, পাহাড়, নদী, টাউন সবকিছুই তার ক্যামেরার লেন্সে ধরা পড়েছে কাব্যিক রূপে। সঙ্গীত পরিচালক রাজানারায়ান দেব বেশ ভালো কাজ করেছেন। প্রত্যেকটি গানই দর্শকদের বারবার শুনতে মন চাইবে (বিশেষ করে অরিজিত সিংহ-এর গাওয়া ”থেমে যাই” গানটি)। সম্পাদক  বধাদিত্য ব্যানার্জির কাজ আমরা আগেও দেখেছি সৃজিত মুখার্জীর ছবিগুলিতে কিন্তু এখানে তিনি বেশ হতাশ করেছেন কারন ছবিটি আরেকটু ছোট করার প্রয়োজন ছিল।

পরিশেষে, একটা কথা না জিজ্ঞেস করে পারছি না পরিচালক Kaushik Ganguly -কে, “স্যার আপনি তো নিজের মতন করে ভাবতে ভালবাসেন, কাজের জগতে আপনার একটা স্বকীয়তা আছে, তাহলে এই ছবির একটি খুনের দৃশ্য কেন KAHAANI (হিন্দি ছবি) থেকে প্রায় টুকে দেওয়া ? সুজয় ঘোষ বড় পরিচালক মানলাম, কিন্তু আপনিও তো Kaushik Ganguly, এই মুহূর্তে বাংলা ছবির জগতে সবথেকে চিন্তাশীল পরিচালক, আপনার ছবিতে এমন দৃশ্য থাকলে অনেকেরই চোখে লাগতে বাধ্য। ভবিষ্যতে একটু জত্নবান হবেন আশা রাখলাম।

এই ছবি নিবেদিত হয়েছে প্রয়াত ঋতুপর্ণ ঘোষের স্মৃতির উদ্দেশ্যে, তাই এই প্রতিবেদনের শেষে আমিও খোলা আকাশের দিকে তাকিয়ে ঋতুদাকে দেখার চেষ্টা করলাম, আর উপর থেকে এক ফোঁটা জল এসে পড়ল আমার হাতে। যেখানেই থাকো ভালো থেকো ঋতুদা। আমরা সবাই তোমাকে খুব মিস করি।

Review by: Sanjib Banerjee

C/O Sir is national award winning director Kaushik Ganguly’s suspense thriller and is about a blind teacher. The movie stars Saswata Chatterjee who is a versatile actor and had starred in Kahaani as Bob Biswas.

Enhanced by Zemanta

1 COMMENT

LEAVE A REPLY

Please enter your name here
Please enter your comment!