Rituparno Ghosh’s Satyanweshi releasing September 6th; Sherlock to Satyanweshi, lets trace the journey meanwhile

2
158

Rituparno Ghosh's Byomkesh

ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রিতে আবার রহস্যভেদিদের রমরমা !!! 

তবে কি দর্শক আবার নবরূপে তাদের প্রিয় গোয়েন্দা চরিত্র গুলিকে সিনেমার পর্দায় পেতে চাইছেন ?

মনস্তাত্ত্বিক সমীক্ষা বলে যে অধিকাংশ মানুষেরই রহস্যের প্রতি এক স্বাভাবিক ঝোঁক আছে কারন অজানাকে জানা, অচেনা কে চেনার মধ্যে এক ধরনের মাদকতা লুকিয়ে থাকে, যা দর্শক দের মনের কোনে লুকিয়ে থাকা রহস্য ভেদি সত্বা কে জাগিয়ে তোলে । এই কারন ছাড়াও আছে সাহিত্যিক সৃষ্ট কিছু এমন চরিত্র , যাদের ছবির পর্দায় দেখার জন্যে দর্শকদের উৎসাহে কোন সময় ভাঁটা পড়েনা। এমন দুই চরিত্র নিয়ে এই প্রতিবেদনে আলোচনা করবো, যে দুটি চরিত্র এখন খবরের শিরোনামে বিরাজমান । এই দুই গোয়েন্দা চরিত্রের একজন ভারতীয়, অন্যজন ইংরেজ । একজন ব্যোমকেশ বক্সী, অন্যজনের নাম Sherlock Holmes । ব্যোমকেশ বক্সীর সৃষ্টি কর্তা হলেন শরদিন্দু বন্দ্যোপাধ্যায় এবং শারলক হোমসের জন্মদাতা হলেন Sir Arthur Conan Doyel ।

Sherlock Holmes

এই দুজন গোয়েন্দা ছবির পর্দায় আসতে চলেছেন নতুন আঙ্গিকে । নতুন হোমস কে নিয়ে হলিউড -এর হাওয়া উত্তাল কারন classical Sherlock Holmes -এর আঙ্গিকগত পরিবর্তন ঘটিয়ে ফেলেছেন পরিচালক Guy Ritchie, যা নিয়ে বিলেতের প্রাচীনপন্থীরা যথেষ্ট ক্ষুব্ধ কারন তাদের অনেকের কাছেই হোমস চরিত্র টি Arthur Conan Doyel-এর এক অনন্য সৃষ্টি এবং হোমসের গতিপ্রকৃতি Bible -র সমতুল্য । নতুন হোমস Rober Downey Junior  কে বহু বিশুদ্ধবাদী মেনে নিতে পারছেন না কিন্তু এও শোনা যাচ্ছে নতুন প্রজন্ম কিন্তু রবার্টকে বেশ উদারতার সঙ্গেই মেনে নিয়েছে । যদিও আমি সেই ছোটোবেলায় BBC-তে দেখা Jeremy Bretts অভিনীত Sherlock Holmes -কে আজও ভুলতে পারিনা । আধুনিক হোমসকে ঠিক যেন Jeans & Tee-Shirt পরিহিত ব্যোমকেশ বক্সীর মতন দেখতে লাগছে । লেখক সৃষ্ট গোয়েন্দা Holmes-এর স্বভাব সুলভ গাম্ভীর্য, সূক্ষ্ম রসবোধ আমি হোমসের এই নব অবতারের মধ্যে খুঁজে পাচ্ছিনা। এই নতুন Holmes-কে বেশ খানিকটা James Bond-এর আদলে গড়া হয়েছে বলে আমার নিজের ধারনা হয়েছে প্রথম দুটো ছবি দেখার পরে ।

 sherlock_holmes

মজার বিষয় হচ্ছে এই যে ভারতেও ব্যোমকেশ বক্সী কে নিয়ে Film Industry তে উত্তেজনার স্রোত বয়ে যাচ্ছে । একাধিক নামী পরিচালক। স্বপন ঘোষাল (Swapan Ghosal), অঞ্জন দত্ত (Anjan Dutt)-র পরে এবার মুক্তি পেতে চলেছে ঋতুপর্ণ ঘোষের (Rituparno Ghosh) শেষ ছবি ‘ সত্যান্বেষী ‘। নামযাদা Bollywood Director Sujoy Ghosh -কে নাম ভূমিকায় নির্বাচন করে ঋতুদা সমগ্র দেশে হৈ চৈ ফেলে দিয়েছিলেন । Sujoy Ghosh-এর আগে ব্যোমকেশ বক্সীর চরিত্রে অভিনয় করে ফেলেছেন মহানায়ক উত্তমকুমার (Uttam Kumar),শুভ্রজিত দত্ত (Subhrojit Dutta) এবং আবির চট্টোপাধ্যায় (Abir Chatterjee)।

Satyanweshi

 

ঋতুদার ‘সত্যান্বেষীর’ -র official  trailer Youtube-এ দেখার পরে আমার মনে হয়েছে যে ঋতুপর্ণ ঘোষ তার ব্যোমকেশ বক্সীকে এক “অসাধারন” মেধার সাধারন মানুষ রূপে তুলে ধরতে চেয়েছেন।  এমন এক চেষ্টা ছোট পর্দায় বাসু চট্টোপাধ্যায় করেছিলেন যখন তিনি রজিত কাপুরকে ব্যোমকেশ বক্সী চরিত্রে অভিনয় করিয়েছিলেন। আমরা অনেকেই জানি আজও হিন্দি সিরিয়ালের সেই পর্ব গুলো কতোটা জনপ্রিয় Youtube-এ । ঋতুদা সুজয় ঘোষকে নির্বাচন করে এক ঢিলে দুই পাখি মেরেছেন কারন সুজয় নিজেই একজন অসাধারন মেধার সাধারন মানুষ । সুজয়কে সামনে থেকে দেখলে, কথা বললে একজন সাধারন শিক্ষিত পুরুষ বলেই ভ্রম হয় কিন্তু এই লোকটি যখন অনায়াসে লিখে ফেলেন ‘Kaahani’-র মতন এক দুর্দান্ত script তখন আমরা জানতে পারি যে এই সাধারন সাদামাটা চেহারার পেছনে আত্মগোপন করে আছে এক অসাধারন মেধার চৌকশ মানুষ । আমার মনে হয়েছে ঋতুদা ঠিক এই angle-টাই ধরতে চেয়েছেন তার ‘সত্যান্বেষী’ ছবিতে। ঋতুদার ব্যোমকেশ কে ঠিক আলাদা করে চেনা যায়না একজন detective হিসাবে কিন্তু প্রচারের অন্তরালে থেকে এই অসাধারন মেধার মানুষ টি ভেদ করে ফেলেন এক গভীর রহস্য। ঋতুদা ‘ব্যোমকেশ’ কে Hero হিসাবে দেখতে কিম্বা দেখাতে কোণটাই চাননি । সেই তুলনায় অঞ্জন দার ‘ব্যোমকেশ’ রূপে ‘আবির চট্টোপাধ্যায়’ অথবা সত্যজিৎ রায়ের চিড়িয়াখানার ‘উত্তমকুমার’ অনেক বেশি dashing এবং নায়কোচিত । এখানেই ঋতুদা তার পূর্বসূরিদের থেকে স্বকীয়। পরিচালক ঋতুপর্ণ ঘোষ তার ‘ব্যোমকেশ বক্সী ‘ কে মিশিয়ে দিতে চেয়েছেন সাধারন দর্শকের ভিড়ে । ব্যোমকেশের চেহারার জৌলুশ নয়, তার কাজ-ই হচ্ছে তার পরিচয়ের বাহক। আমি জানিনা বাঙালি দর্শক কতটা সাদরে গ্রহন করবেন এই নতুন ব্যোমকেশকে, আমি কিন্তু ভিন্ন ধারার কিছু দেখার উৎসাহে অধীর আগ্রহে দিন গুনছি ।

পাশাপাশি আরেক বাঙালি পরিচালক দিবাকর বন্দ্যোপাধ্যায় (Dibakar Banerjee) হিন্দি তে ব্যোমকেশ বক্সী- কে নিয়ে ছবি করতে চলেছেন, তাও আবার যশরাজ ফিল্মস- (Yashraj Films)-এর ব্যানারে। ব্যোমকেশ চরিত্রে দিবাকর বেছে নিয়েছেন সুশান্ত সিং রাজপুত (Susant Singh Rajput)- কে। সুশান্ত আজকের সময়ের trendy hero, তাকে ধ্রুপদী ব্যোমকেশ চরিত্রে নির্বাচন করে দিবাকর বোধয় নতুন Sherlock Holmes -এর মতনই কিছু একটা করতে চলেছেন, এমনটাই Media -র নানান মহলের ধারনা।

 

প্রসঙ্গত, দিল্লী দূরদর্শনের জন্যে বিখ্যাত পরিচালক বাসু চট্টোপাধ্যায় (Basu Chatterjee) নির্মাণ করেছিলেন ‘ব্যোমকেশ বক্সী ‘ হিন্দি ভাষায়, এবং সেই টি.ভি সিরিয়ালে ব্যোমকেশ চরিত্রে অভিনয় করেছিলেন রজিত কাপুর (Rajit Kapoor)। এখনো এমন অনেক কে এখনো পাওয়া যাবে, যাদের কাছে রজিত কপুরের (Rajit Kapoor) থেকে ‘উচিৎ’ ব্যোমকেশ আগেও কোনোদিন হয়নি আর ভবিষ্যতেও হবেনা কিন্তু তাও সময় তার নিজের গতিতে এগিয়ে চলে, কালের স্রোতে Sherlock Holmes এবং  Byomkesh Bakshi এই দুই চরিত্র-ও এগিয়ে চলেছে বিভিন্ন সময়ে বিভিন্ন চিত্রনির্মাতা ও পরিচালকের হাত ধরে।

 

 

Sanjib BanerjiSanjeeb Banerji takes a keen interest in both Old and Contemporary/modern Bengali literature and cinema and have written several short stories for Bengali Little magazines. He also runs a little magazine in Bangla, named – Haat Nispish, which has completed its 6th consecutive year in the last Kolkata International Book Fair. Being the eldest grandson of Late Sukumar Bandopadhaya, who was the owner of HNC Productions and an eminent film producer cum distributor of his time (made platinum blockbusters with Uttam Kumar, like “Prithibi Aamarey Chaaye”, “Indrani” and several others), Sanjib always nurtured an inherent aspiration of making it big and worthy in the reel arena. He has already written few screenplays for ETV BANGLA.

Sanjib can be reached at sanjib@sholoanabangaliana.com

Sherlock Holmes Image Credit: Google Images

Enhanced by ZemantaArticle By:

2 COMMENTS

  1. Did not like Downey as Holmes at all as Jeremi Bretts is my all time favourite. Nice article. Site is becoming more & more interestingly catchy and sleek content wise.

LEAVE A REPLY

Please enter your name here
Please enter your comment!