Interview: Silajit Majumder – The Innocent and Outspoken Super Talented Singer/Actor/Composer (Video Unplugged)

0
1023
silajit-majumder

 

photo Silajit Majumder

I do get connected to my genre of musical audiences directly; never ever will need a middleman or a broker for that purpose whatsoever …!!!

 

Silajit Majumder was born on 9th October 1965 and completed his schooling from St.Pauls school and then completed his +2 from Scottish Church College. Thereafter he acquired his bachelors degree in English Literature from Vidyasagar College, University of Calcutta. Silajit then joined ABP Ltd as a Ad-Sales Executive but his creative mind did not let him pursue his career in Marketing for long. While working with The Anandabazar Patrika, Silajit gradually started involving himself more into making his ‘genre’ of music, something which he has always believed in. Though he was an untrained vocalist, still Silajit’s unique voice texture created sensation in the Bangla modern music circuit.

In the late 90’s the Bangla modern music was dominated by ‘Jibonmukhi’ gaan, a special ultra-modern urban musical genre, which was dominated by the talented Suman Chattopadhyay alias Kabir Suman & the versatile Nachiketa Chakraborty. Kabir Suman and Nachiketa were also joined by Anjan Dutt, who was primarily a filmmaker/actor. Anjan Dutt’s stabilization and westernized genre also won the hearts of Bengali urban music lovers. Bangla Band culture also started to gain momentum during this phase with the evolution of Cactus and Lokkhichhara.

During such a juncture, Silajit resigned from his secured marketing job and decided to take up music professionally. Silajit’s emergence in the Bangla music scene, created a havoc in the minds of educated urban college going youth as his writings always spoke about their frustrations, anguishes and often reflected pain of failed love. Silajit’s songs were simple in nature and musical treatment given to those was very raw and such manly rawness attracted the young listeners to a large extent. His famous song “Ghum Peyeche Bari Jaa” was one of the prime chart-busters of the 90’s.

Silajit also stepped in Tollywood, when late Rituparno Ghosh chose him to play the male lead opposite Debosree Roy in his 3rd film, titled ‘Asukh’. The film also starred Soumitra Chatterjee and marked the debut of Arpita Chattejee (then ‘Pal), who later on married Prosenjit Chatterjee. Asukh won various awards, at the National & International levels and Silajit Majumder also became an actor and many noted directors started to take his acting skills more seriously. Thereafter Silajit has acted in many Tollywood projects, those includes major Box Blusters, such as Aniket Chattopadhyay’s “Chha-e Chhuti” & “Bye Bye Bangkok” and Srijit Mukherj’s “Hemlock Society”.

Apart from making music and acting in Bangla cinema, Silajit is also considered to be a skilled writer as well. He has already written six popular books. All of these books got released during the course of The Kolkata International Book Fair (2007-2012). Silajit has also composed and sung the title track for the 1st ever Bengali Big Boss (2013), which became very popular.

silajit modern bangla songs


Interview Excerpts:

 

Sholoana Bangaliana :  শিলাজিৎ দা “ষোলোআনা বাঙ্গালিয়ানা” তে তোমাকে স্বাগত জানাই, ২০১৩ সালে গায়ক শিলাজিৎ কতখানি এগোলেন ?

শিলাজিৎ :  এই তো সবে শুরু হল … আমি আগেই বলে রেখেছিলাম যে ২০১৩ সালে গায়ক শিলাজিৎ আত্মপ্রকাশ করবে।

 

Sholoana Bangaliana :  Radio Mirchi  জলসাঘরে  মীর (Mir)-এর সঙ্গে স্পেসাল ষ্টেজ পারফরমেন্স করে কেমন লাগলো?

শিলাজিৎ : ভালোই তো লাগলো গান গেয়ে। ওই যেমন দর্শকরা দেখেছেন … তেমনই ।

 

Sholoana Bangaliana:  একটা কথা জানতে খুব ইচ্ছে করছে … গায়ক না অভিনেতা, কোন পরিচয়টা তোমার নিজের কাছে সবচেয়ে বেশি প্রিয়? এখন তো তুমি গানের পাশাপাশি অভিনয়টাও সমানতালে চালিয়ে যাচ্ছ … তাই জিজ্ঞেস করলাম … কোন পরিচয়টাকে তুমি বেশি গুরুত্ব দাও?

শিলাজিৎ : প্রথমেই আসবে সুরকার শিলাজিৎ … আমার কাছে যদি জানতে চায় কেউ, তাহলে বলব প্রথমেই আমি শিলাজিৎ মজুমদারকে একজন সুরকার হিসাবে দেখি … এরপরেই আসবে আমার লেখা … তারপর আমি একজন গায়ক এবং সবার শেষে থাকবে আমার অভিনয়।

 

Sholoana Bangaliana :  তুমি তো সম্প্রতি STRUGGLER’S নামক একটি বাংলা ছবির সংগীত পরিচালনা করে ফেললে। কাজটা করে কেমন লাগলো?

শিলাজিৎ :  STRUGGLER’S সিনেমার সব গানগুলো ইতিমধ্যেই যথেষ্ট সাড়া ফেলেছে শ্রোতাদের মধ্যে। অনেকেই আমাকে জানাচ্ছে যে গানগুলো বেশ ভালো লাগছে শুনতে। আমি এই ছবিতে যে গায়ক/গায়িকাদের নিয়ে কাজ করেছি, তারা প্রত্যেকেই প্রতিভাবান এবং খুব মন দিয়ে গানগুলোকে গেয়েছে। যারা আমার জন্যে গান গেয়েছে, তাদের মধ্যে দুজন তো অত্যন্ত পরিচিত তথা জনপ্রিয় শিল্পী এবং একজন স্বল্প পরিচিতা। তারা হলেন রুপম  (Rupam Islam), অনুপম এবং অনন্যা । অনন্যা আমার ব্যান্ডের গায়িকা, আমার সঙ্গে বহু বছর কাজ করছে। আমি খুব ভালো রেসপন্স পাচ্ছি আর আমার বেশ ভালো লেগেছে এই ছবির সংগীত পরিচালনা করে।

 

Sholoana Bangaliana : এখন টলিউডে যে ধরনের কাজ হচ্ছে, মানে বর্তমানে বাংলা ছবিতে যে ধরনের গান ব্যবহৃত হচ্ছে। বেশ কয়েকজন নবীন সংগীত পরিচালকরা এসে যে ধরনের কাজ করছেন। সেই সম্পর্কে শিলাজিতের কি বক্তব্য? কেমন লাগছে?

শিলাজিৎ : আমার তো বেশ ভালো লাগে এমন কাজ দেখতে। আমি খুব খুশি যে আমি এই জেনেরশন টার একজন। ইনফ্যাক্ট আমাদের জেনেরশনটা নিয়ে যথেষ্ট গর্ববোধ করি আমি।

 

Sholoana Bangaliana : তুমি তো গায়ক হিসাবে নিউ জেনেরশন সংগীত পরিচালকদের প্রায় সবার সঙ্গেই কাজ করেছ। কেমন লেগেছে কাজ করে?

শিলাজিৎ :  আমি সম্প্রতি যে দুজনের সঙ্গে কাজ করেছি, তারা হচ্ছেন জয় সরকার (Joy Sarkar) এবং অনুপম রায় (Anupam Roy) ….

 

Sholoana Bangaliana :   Indraadip Dasgupta -র সঙ্গে নতুন কোন কাজ করছ না ?

শিলাজিৎ :   ইন্দ্রদীপের সঙ্গে  তো আমি আগে অনেক কাজ করেছি , ও আমাকে দিয়ে একটা সময় প্রচুর গান গাইয়েছে। কিন্তু তখন তো আর ইন্দ্রদীপ দাশগুপ্ত ‘কমার্শিয়াল’ সিনেমার সংগীত পরিচালক ছিলো না। যবে থেকে ইন্দ্রদীপ কমার্শিয়াল সিনেমায় সুর দেওয়া শুরু করেছে, আমাকে আর গান গাইতে ডাকে না। হয়ত এখনো শিলাজিৎ ওর কাছে এনাফ কমার্শিয়ালি ভায়াবল সিঙ্গার নয় !!! যেদিন আমি কমার্শিয়াল সিঙ্গং হবো,  সেদিন থেকে ইন্দ্রদীপ আমাকে আবার ওর সুরে গান গাইতে ডাকবে। অবশ্য এখন যে ইন্দ্রদীপ আমাকে ডাকে না, সেটাতেও আমার কিসস্যু যায় আসে না। আসলে আজ যারা বাংলা সংগীত জগতে করে খাচ্ছে, তাদের অনেককেই আমি তাদের কেরিয়ারের শুরুর দিনগুলোতে কোন না কোনভাবে সাহায্য করেছি। আমার বরং এটা ভেবেই ভালো লাগে যে আজকের অনেক রাঘব বোয়ালদের আমি একটা সময় নানা ভাবে সাহায্য করেছি। কখনো তাদের প্রোজেক্টে কম পারিশ্রমিকে কাজ করেছি, কখনো বা বিনা পারিশ্রমিকে গান গেয়ে দিয়েছি তাদের জন্যে। নিজের মতন করে কন্ট্রিবিউট করেছি তাদের কেরিয়ারে। আজকে তারা যে জায়গাটা পেয়েছে, সেটা পাওয়ার পেছনে শিলাজিৎ মজুমদারের যথেষ্ট অবদান আছে। এখন যদি তারা আমাকে পাত্তা নাও দেয়, তাহলেও তাতে শিলাজিতের কিস্যু যায় আসেনা। আমার কানেক্সন ডাইরেক্ট জনতার সঙ্গে করা আছে। জনগনের কাছে পৌছনোর জন্যে  শিলাজিতের কোনোদিন কোন দালালকে দরকার পড়েনি আর ভবিষ্যতেও পড়বে না।

 

Sholoana Bangaliana :  তোমার নতুন ব্যান্ড ফরমেশন নিয়ে কিছু বলবে না ?

শিলাজিৎ :  নতুন ব্যান্ড এবং শিলাজিৎ প্রায় সমার্থক হয়ে দাঁড়িয়েছে। প্রত্যেক বছরই আমি আমার ব্যান্ডের ফরম্যাট চেঞ্জ করে দিই। শ্রোতাদের নতুন ধরনের মিউজিক উপহার দেবার প্রচেষ্টা করেই যাই আর সেই জন্যেই ফরম্যাটে রদবদল ঘটিয়ে দিই।  এখন বাংলা ব্যান্ড যে ধরনের মিউজিক্যাল আরেঞ্জমেনট নিয়ে ষ্টেজ পারফরমেন্স করে, সেই ধারার প্রবর্তক-ও কিন্তু শিলাজিৎ মজুমদার। তবে এবার যা আসতে চলেছে, তা হয়ত পশ্চিমবঙ্গের দর্শকরা বোধয় আগে কখনো দেখেনি। অনেক চিরাচরিত ধ্যান ধারনা কিম্বা বলা ভালো প্র্যাকটিসকে পাল্টে ফেলে আমি এক নতুন ধরনের মিউজিকাল ফরম্যাট নিয়ে আসছি আমি। আমি করছি তো …  তাই আমার কাজের উপর ভরসা রাখলে এবারও আমার কাছ থেকে কিছু নতুনত্ব আশা করতেই পারেন বাঙালি শ্রোতারা।

 

Sholoana Bangaliana : BANGLA BIG BOSS-এর টাইটেল ট্র্যাক গাইলে তুমি, এত জনপ্রিয় হল। কেমন লাগছে এই সর্বভারতীয় জনপ্রিয়তা? তোমার অভিজ্ঞ্যতা ভাগ করে নাও।

শিলাজিৎ :  আমি খুব খুশি যে আমার মধ্যে যে একটা ‘BOSSY’ ব্যাপার আছে, সেটা খেয়াল করে উদ্যক্তারা আমাকে নির্বাচন করলেন প্রথম বাংলা বিগ বসের টাইটেল ট্র্যাক -টা গাওয়ার জন্যে। গানটা গেয়ে ভালো পয়সা পেলাম … জাতীয় স্থরে বেশ নামডাক হল … Tile Track-টা শুনে লোকে প্রশংসা করছে। ভালোই তো লাগছে।

 

Sholoana Bangaliana : তুমি তো বিগ বস বাড়িতেও একদিনের জন্যে ছিলে … কেমন লাগলো অমন একটা বাড়িতে রাত কাটিয়ে?

শিলাজিৎ :  বেশ মজার ব্যাপার … ভালোই লেগেছে BIG BOSS HOUSE-এ একদিনের জন্য থাকতে। আমাকে আসলে অভিনয় করতে হয়ছিল বিগ বস  হাউসে থাকতে এসেছি বলে  বাড়ির বাকিদের চমকে দেবার জন্যে। একটা অন্য ধরনের জীবনযাপন … বেশ অন্যরকম ওখানকার সবকিছু। ওখানে তখন যারা ছিল, তারা সবাই আমাকে চিনত … তারা আমাকে ভালোবাসে কিনা জানিনা তবে প্রত্যেকেই আমাকে পছন্দ করে একথা বলতে পারি, অবশ্য অপছন্দ করলেও মুখের উপর কেউ কোনদিন বুঝতে দেয়নি আমাকে।

 

Sholoana Bangaliana:  বিগ বস হাউসে কি দুজন জ্যোতিষী ছিল? মানে একজনকে আমরা তো সবাই চিনি – বিখ্যাত জ্যোতিষী শ্রী মহেশ জালান। আরেকজন জ্যোতিষী কি তুমি? কারন মিঠুন চক্রবর্তী (Mithun Chakraborty) যখন জানতে চাইলেন তোমার কাছে, যে বিগ বস প্রতিযোগিতার সম্ভাব্য বিজয়ী কে? তুমি বলেছিলে যে অনীক ধর হচ্ছে তোমার ডার্ক হর্স। কিভাবে বুঝেছিলে?

শিলাজিৎ : আমি শুধু আমার ডার্ক হর্স হিসাবে অনীক কে বাছিনি, আমি মিঠুনদাকে এটাও বলে দিয়েছিলাম যে সম্ভাব্য ফাইনালিস্ট কে কে হবে। এটা খুব সাধারন সমীকরণ। আমাকে তখনকার প্রতিযোগীদের মধ্যে থেকে এমন তিনজনকে বাছতে হয়েছিল, যাদের বিগ বসের ফাইনালিস্ট হবার মতন কলজের জোর ছিল এবং যারা লড়াই করে শেষ পর্যন্ত টিকে থেকে বাজিমাত করতে পারে। আমার এক্সপেরিয়েন্স, তাদের এক্সপেরিয়েন্স সবকিছু ক্যালকুলেট করে, আমি মিঠুনদাকে আমার বাছাইদের নাম জানাই এবং পরবর্তীকালে দেখলাম যে আমার আন্দাজ অক্ষরে অক্ষরে মিলে গেলো! অবশ্য না মিলতেও পারতো। একটা কথা বলি, যে জ্যোতিষীগিরি করে, যারা করে খাচ্ছে, খাক কিন্তু এটা বুঝতে হবে যে বিগ বস বিজয়ী কে হতে পারে, সেটা বোঝার জন্যে জ্যোতিষ বিদ্যা লাগেনা, যেটা লাগে সেটা হচ্ছে অভিজ্ঞ্যতা এবং মানুষ চেনার সাধারন জ্ঞ্যান।

 

Sholoana Bangaliana অনেক ধন্যবাদ দাদা, ষোলোআনা বাঙ্গালিয়ানার সঙ্গে এতটা সময় কাটানোর জন্য। তুমি খুব ভালো থেক।।

Interview: Silajit Majumder, Unplugged and Unedited (You Tube)
Note: The views expressed are solely those of the interviewee and Sholoana Bangaliana in no way agrees or disagrees to any comment made by the interviewee or the interviewer.

 

 

Interviewer: Pratik Banerjee

Photographs: Sagnik Jaiswal

 

 

Enhanced by Zemanta

LEAVE A REPLY

Please enter your name here
Please enter your comment!